Walton Primo F8 Full Review In Bangla I Made In Bangladesh

May 9 • রিভিউ, স্মার্টফোন • 41 Views • No Comments on Walton Primo F8 Full Review In Bangla I Made In Bangladesh

F সিরিজের আন্ডারে আরো একটি নতুন স্মার্টফোন রিলিজ হয়েছে বেশ কিছুদিন আগেই, Walton Primo F8 আর Primo F7s এর মধ্য তেমন বেশি পার্থক্য খুঁজে পাওয়া যায় নি । এটি ও মেইড ইন বাংলাদেশ ট্যাগ নিয়েই হাজির হয়েছে আমাদের সামনে। যারা লো- প্রাইজের স্মার্টফোন খুজছেন তারা ইচ্ছা করলে এটি একবার দেখে নিতে পারেন।

Walton Primo F8 এ মাসেই বাজারে রিলিজ হয়েছে, এটি একটি low-end স্মার্টফোন যা আপনাকে basic কিছু configuration অফার করবে। যাই হোক Walton Primo F8 আপনাকে ৫ হাজার টাকার বাজেট রেঞ্জের মধ্য যতোটুকু পার্ফোম্যান্স দেয়া পসিবল তাই প্রভাইড করতে চেষ্টা করবে বলে আশা করা যায়। তো চলুন আর কথা না বাড়িয়ে সরাসরি রিভিউতে চলে যাই,

ডিসপ্লে ৫ ইঞ্চি এফ ডব্লিউ ভিজিএ   ডিসপ্লে (৮৫৪*৪৮০)
অপারেটিং সিস্টেম অ্যান্ড্রয়েড ৭.০ নোগাট
প্রসেসর  ১.৩ গিগাহার্জ কোয়াড কোর প্রসেসর
র‌্যাম ১  জিবি
ইন্টারনাল স্টোরেজ/ রোম ৮ জিবি
জিপিউ ৪০০
মেমোরী কার্ড স্লট সর্বোচ্চ ৬৪ জিবি পর্যন্ত
 রেয়ার  ক্যামেরা ৫  মেগাপিক্সেল
ফ্রন্ট  ক্যামেরা ৫মেগাপিক্সেল
সিম সাপোর্ট ১ মাইক্রো সিম+ ১ মিনি সিম
ব্যাটারী ২০০০মিলি অ্যাম্পিয়ার ব্যাটারী
মূল্য ৫০৯৯  টাকা

 

low-end কাস্টমারদের চাহিদার কথা বিবেচনা করেই মূলতা বাজারে Primo F8 ছেড়েছে ওয়ালটন। যেহেতু এটি একটি বেসিক কনফিগারেশনের এন্ট্রি লেভেল ইউজারদের ডিভাইস সেহেতু এটি দ্বারা সুপার স্পেক আশা না করাই ভালো

ফ্রন্ট প্যানেল এর টপে থাকছে 5mp এর রেয়ার ক্যামেরা, সেন্সরস, ইয়ারপিস ও নোটিফিকেশন লাইট আর নিচের দিকে ৩ টি লাইট ফ্রি টাচ ক্যাপাসিটিভ কিস রয়েছে।

লেফট সাইডটি সম্পূর্ন খালি আর রাইট সাইডে ভলিউম রকার ও পাওয়ার বাটন্স থাকছে। একেবারেই নিচের দিকে মাউথ পিস ও উপরের দিকে অডিও জ্যাকপোর্ট ও ইউ এস বি পোর্ট পাবেন।

ব্যাক সাইডের টপ পজিশনে এক সাইডে 5mp এর রেয়ার ক্যামেরা আর তার সাথেই থাকছে ফ্ল্যাশ লাইট। অনেকে হয়তো ভাবছেন লাউডস্পিকার কই? এই ডিভাইস্টিতে ইয়ারপিসের পর্শন্টিতে লাউডস্পিকার ব্যাবহার করা হয়েছে ।

স্মার্টফোনটি সম্পূর্ন প্লাস্টিক বিল্ড হলেও শুধু মাত্র এটি দেখে বোঝার উপায় নেই যে এটি প্লাস্টিক বিল্ড। ব্যাক পার্টিতে ম্যাট ফিনিশিঙ্গের সাথে টেক্সচার ও রয়েছে । আর হ্যাঁ যেহেতু ম্যাট ফিনিশিং সেহেতু ফিঙ্গার প্রিন্ট পড়ার কোনো প্রশ্ন ই উঠে না।

ব্যাকপার্টটি রিমুভ করলে দেখা যাবে ২ হাজার মিলি এম্পিয়ারের একটি রিমুভেবল ব্যাটারি সাথে আরো থাকছে ১ টি মিনি ও ১ টি মাইক্রো সিম স্লট ও একটি মেমোরী কার্ড স্লট যেখানে সর্বোচ্চ ৬৪ জিবি পর্যন্ত ব্যাবহারের সুবিধা থাকছে ।

প্রথমে আমি এর ব্যাটারি নিয়ে চিন্তিত থাকলেও ২-১ দিন ইউজ করার পর থেকে সকল চিন্তার অবশান ঘটেছে। একদিন ব্যাটারি ব্যাকাপ তো চোখ বন্ধ করেই পেয়ে যাবেন। টানা লম্বা সময় ইউজের পর ও ব্যাটারি ভালো ই পার্ফোম্যান্স দিয়েছে। তারপর ও যদি এর ব্যাটারি ব্যাকাপ নিয়ে চিন্তা থাকে, তাহলে সম্পূর্ন রিভিউটি দেখার পর আর থাকবে বলে আমার মনে হয় না । এছাড়াও এর ব্যাটারি ব্যাকাপকে স্লাইটলি ইম্প্রুভ করতে চাইলে আপনি ব্যাটারি সেভিংস মুডটি ব্যাবহার করতে পারেন।

এ ডিভাইস্টিকে কে operate করার জন্য oparating system এ থাকছে Android 7.0 Nougat যেহেতু ও টি এ রয়েছে সেহেতু ছোটো কোনো আপডেট পেলেও পেতে পারেন।


এর ইউ আই টি কিছুটা কাষ্টমাইজড আইকন ও হালকা কিছু পরিবর্তন দেখা গিয়েছে। আর অন্য সব কিছু একেবারেই স্টকের মতো । এপ্স ট্রাঞ্জিশনে কোনো প্রকার ল্যাগ ফেগ নেই । সুপার স্মুথ ট্রাঞ্জিশন। এপস ওপেনিং টাইম যদিও কিছুটা লেন্দি

Device টি তে থাকছে 5-inch IPS FWVGA Display। ডিসপ্লেটির রেজুলেশন 854*480 pixels আর এটি সর্বোচ্চ 16 M colors Support দিবে আপনাকে। টাচ রেস্পন্স বেশ সন্তুষ্টজনক মনে হয়েছে। তাছাড়াও এর কালারিপ্রোডাকশন ও বাজেট অনুযায়ী মানিয়ে নেয়ার মতো ই ছিলো।স্মার্টফোনটির লক স্ক্রিন, হোম স্ক্রিন এবং নোটিফিকেশন প্যানেলকে যথাসম্ভব সিম্পল রাখা হয়েছে

ROM 8 GB, RAM 1 GB সেই সাথে থাকছে 1.3 Ghz এর কোয়াড কোর প্রসেসর আর জিপিও হিসেবে মালি 400 পেয়ে যাবেন তাই আশা করি বেশ ভালো Performance পারবেন ।

গেইমিং এক্সপিরিয়েন্স ও মোটামোটি ভালো ই ছিলো। নরমাল বা মিড গ্রাফিক্সের গেইমে কোনো প্রকার কমপ্লেইন নেই । তাছাড়া ও লম্বা সময় স্মার্টফোনটি ইউজ বা গেইম খেলার সময় কোনো প্রকার হিটিং ইস্যু পাওয়া যায় নি। গেমিং এক্সিপিরিয়েন্স বাজেট অনুযায়ী ভালো বলাই চলে।

Walton Primo F8 এর camera কোয়ালিটি মোটামোটি । Rear ক্যামেরায় ক্যামেরা ফিচার্স হিসবে থাকছে Face detection , বি এস আই সেনসর, সেলফ টাইমার, ডিজিটাল জুম, টাস শট
ক্যামেরা সেটিন্স এ এক্সপোজার, হোয়াট ব্যালেন্স, সেচুরেশন ও শার্প্নেস ম্যানুয়ালি কন্ট্রোল করতে পারবনে।
আর সেই সাথে নরমাল মুড, ফেইস বিউটি, এইচ ডি আর, Panorama সহ বেশ কিছু নরলাম মুডের পাশাপাশি পেয়ে যাবেন প্রফেশনাল ক্যামেরা মুডটি ও । প্রফেশনাল ক্যামেরা মুডে আই এস ও, শার্প্নেস, সেচুরেশন ম্যানুয়ালি কন্ট্রোল করে বেশ ভালো মানের ছবি তুলতে পারবেন।ছবি গুলোর কালার কন্ট্রাস্ট ও শার্পনেস মোটামোটি । শাটার স্পিড ও তুলনামুলক বেশ ফাস্ট ছিলো।

ডেলা লাইটের ছবিগুলো এভারেজ আর লো-লাইটের ছবি গুলোতে নয়েজের দেখা পাবেন।

রেয়ার ক্যামেরার মতো ফ্রন্টেও 5 Mp এর ফ্রন্ট ক্যামেরা থাকছে। সেই সাথে সেইম নরলাম কিছু ক্যামেরা ফিচার্স ও শুটিং মুড পেয়ে যাবেন।

আর এই স্মার্টফোনটি দিয়ে ফুল এইচ ডি আই মিন 1080*1920 তে ভিডিও রেকর্ডিং করার সুবিধা ও পাবেন।

ফুল এইচডি ভিডিও গুলো অনায়াসেই প্লে করতে পারবেন এই স্মার্টফোনটি দিয়ে। ভিডিওর কালার ও শার্প্নেস কিছুটা কম মনে হয়েছে কারণ IPS FWVGA ডিসপ্লে এর থেকে বেশি সাপোর্ট দিবে বলে আমার মনে হয় না । সাইট থেকে কিছুটা নেগেটিভ ভিউ এর জন্য ভিউ এংগেল তেমন একটা ভালো ছিলোনা। আর ডিসপ্লের কালার ও কন্ট্রাস্ট কিছুটা ইম্প্রুভ করার জন্য ইচ্ছে করলে আপনি মিরাভিশন টেকনোলজি ব্যাবহার করতে পারবেন।

 

স্মার্টফোনটিতে স্মার্ট একশন ও স্মার্ট জেশচারের পাশাপাশি প্রোটেকটেড এপস এর সুবিধা পাবেন বিল্ট ইন ভাবেই। আপনি ইচ্ছে করলেই আপনার নিরাপত্তার সার্থে যেকোনো এপ্স কে প্রটেকট করতে পারবেন।

Accelorometer 3D, Light, ও প্রক্সিমিটি সেন্সরস পাবেন এই স্মার্টফোনটিতে।

অভার ওল সব কিছু বিবেচনা করলে এই প্রাইজের মধ্য লো-কনফিগারেশনের স্মার্টফোন হলেও এটি বেশ ভালো মনে হয়েছে আমার কাছে । তাছাড়া স্মার্টফোনটি গ্রে এবং গোল্ডেন এ ২ টি কালারেই বাজারে পাবেন।

এই ছিলো Walton Primo F8 এর রিভিউ, ভিডিওটি নিয়ে যেকোনো প্রকার মতামত জানাতে কমেন্ট করে  জানাতে পারেন । এ সপ্তাহে আরো নতুন নতুন সব স্মার্টফোনের রিভিউ নিয়ে হাজির হবো, সেই পর্যন্ত আশা করি আপনারা সবাই ভালো থাকবেন।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

« »